রুপার ইটের রাম মন্দির নির্মাণ,৫ আগস্ট শুরু

সিটি নিউজ অনলাইন ডেস্ক : ভারতের অযোধ্যায় রাম মন্দির নির্মাণ শুরু হবে আগামী ৫ আগস্ট। এ উপলক্ষে আয়োজিত বর্ণাঢ্য অনুষ্ঠানে অন্তত ৫০ জন ভিআইপি’র উপস্থিতিতে প্রায় ৪০ কেজি রুপার ইট ব্যবহার করে মন্দিরের ভিত্তি স্থাপন করবেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। মন্দির নির্মাণের দায়িত্বপ্রাপ্ত শ্রী রাম জন্মভূমি তীর্থ ক্ষেত্র ট্রাস্ট জানিয়েছে, মূল অনুষ্ঠানের তিন দিন আগে থেকেই সেখানে ধর্মীয় আচার অনুষ্ঠান শুরু হবে। সম্প্রচারমাধ্যম এনডিটিভির প্রতিবেদন থেকে এসব তথ্য জানা গেছে।

বাবরি মসজিদ-রাম মন্দির নিয়ে হিন্দু-মুসলমানের শতাব্দী প্রাচীন বিরোধের আইনি নিষ্পত্তি হয় গত বছরের নভেম্বরে। ভারতের সুপ্রিম কোর্টের পাঁচ সদস্যের বেঞ্চের রায়ে অযোধ্যার বিতর্কিত স্থানে রাম মন্দির নির্মাণ ও বিকল্প স্থানে মুসলমানদের মসজিদ নির্মাণের জমি দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়। মন্দির নির্মাণে একটি ট্রাস্ট গঠনের নির্দেশনাও দেওয়া হয় ওই রায়ে।

সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশনা অনুসারে গঠিত হয় শ্রী রাম জন্মভূমি তীর্থ ক্ষেত্র ট্রাস্ট। মন্দির নির্মাণ শুরুর তারিখ নির্ধারণে গত শনিবার বৈঠকে বসে এই ট্রাস্ট। প্রাথমিকভাবে ৫ ও ৯ আগস্ট দুটি সম্ভাব্য তারিখ নিয়ে আলোচনার পর শেষ পর্যন্ত পাঁচ আগস্টই চূড়ান্ত দিন নির্ধারণ করা হয়।
ট্রাস্টের প্রেসিডেন্ট নৃত্য গোপাল দাস জানিয়েছেন, ভূমি পূজার মধ্য দিয়ে রুপার ইট বসিয়ে মন্দির নির্মাণ কাজ শুরু হবে। মূল অনুষ্ঠানের তিন দিন আগে থেকেই বৈদিক রীতি-নীতি পালন শুরু হবে। ৩ আগস্ট থেকে এসব রীতি পালন শুরু হবে বলে জানিয়েছে ভারতীয় বার্তা সংস্থা পিটিআই (প্রেস ট্রাস্ট অব ইন্ডিয়া)।
করোনাভাইরাসের মহামারির কারণে প্রায় দুই মাস দেরিতে অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া এই বর্ণাঢ্য আয়োজনে প্রায় ৫০ জন ভিআইপি উপস্থিত থাকবেন। আর সংক্রমণ এড়াতে নিরাপত্তা নিয়ম মেনে চলতে অতিথি তালিকা সীমিত রাখা হয়েছে। তবে দূর থেকে অনুষ্ঠানটি প্রত্যক্ষ করার সুবিধার্থে অযোধ্যার বিভিন্ন স্থানে বিশালাকারের সিসিটিভি পর্দা বসানো হবে বলে জানিয়েছে দায়িত্বপ্রাপ্ত ট্রাস্ট।

শ্রী রাম জন্মভূমি তীর্থ ক্ষেত্র ট্রাস্ট জানিয়েছে, মন্দির নির্মাণ আন্দোলনের সঙ্গে জড়িত ক্ষমতাসীন দল বিজেপি’র প্রায় সব সিনিয়র নেতাকেই অনুষ্ঠানে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে। এই তালিকায় বিজেপি নেতা লাল কৃষ্ণ আদভানি, মুরলি মনোহর জোসি ছাড়াও রয়েছেন উমা ভারতি, বিনয় কাতিয়ার মতো সিনিয়র নেতারা। উত্তর প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথও ভূমি পূজায় উপস্থিত থাকবেন।

এছাড়া থাকবেন বিজেপি’র মতাদর্শিক সংগঠন রাষ্ট্রীয় স্বয়ংসেবক সংঘের প্রধান মোহন ভগবত ছাড়াও অন্য সিনিয়র নেতারা।
এছাড়াও থাকতে পারেন মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রী উদ্ভব ঠাকরে ও বিহারের মুখ্যমন্ত্রী নিতিশ কুমার। সম্প্রতি বিজেপি’র সঙ্গে ৩৫ বছরের মিত্রতার অবসান ঘটিয়ে মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে শপথ নেওয়ার পর অযোধ্যা পরিদর্শন করেন উদ্ভব ঠাকুর। তার দলের আইন প্রণেতা সঞ্জয় রাউত বলেন, ‘রাম মন্দির নির্মাণের বাধা অপসারণ করেছে শিব সেনা। অযোধ্যায় যেতে কোনও আমন্ত্রণের দরকার পড়বে না।’

এদিকে করোনা মহামারি রোধে ঘোষিত বিধিনিষেধ দ্বিতীয় ধাপে তুলে নিয়ে ভারতে ধর্মীয় স্থানগুলো খুলে দেওয়ার পর গত ৮ জুন অযোধ্যায় অস্থায়ীভাবে নির্মিত মন্দিরটি দর্শণার্থীদের জন্য খুলে দেওয়া হয়। এর আগে মার্চ মাসে সেখানে রাম মূর্তি স্থাপন করেন উত্তর প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ। গত কয়েক দশক ধরে ওই মূর্তিটি একটি টিনের অবকাঠামোর ওপর রাখা ছিল।

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin