স্ত্রীকে হত্যার দায়ে স্বামীর যাবজ্জীবন

সিটি নিউজ ডেস্ক:: জয়পুরহাটে স্ত্রী তানজিলাকে শ্বাসরোধ করে হত্যার দায়ে স্বামী বাবুল সরকারকে (৫০) যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। এছাড়া তাকে ২০ হাজার টাকা অর্থদণ্ড ও অনাদায়ে আরও ৬ মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেওয়া হয়। 

বুধবার দুপুরে জেলা ও দায়রা জজ আদালতের ভারপ্রাপ্ত বিচারক গোলাম সারোয়ার এ রায় দেন। দণ্ডপ্রাপ্ত বাবুল সরকার গাজীপুরের কালিয়াকৈর উপজেলার তালতলী এলাকার সিরাজুল ইসলামের ছেলে। 

মামলার বিবরণে জানা গেছে, প্রায় এক যুগ আগে জয়পুরহাটের পাঁচবিবির মাতাইশ মঞ্চিল (মালঞ্চা) এলাকার তমেজ উদ্দিনের মেয়ে তানজিলার সাথে কালিয়াকৈরের তালতলী এলাকার সিরাজুল ইসলামের ছেলে বাবুল সরকারের বিয়ে হয়। 

বিয়ের পর তালজিলা গার্মেন্টসের চাকরির টাকা দিয়ে তার বোনের বাড়ি রাধাবাড়ী এলাকায় ৪ শতক জায়গা কিনে একটি বাড়ি তৈরি করেন। তারা স্বামী-স্ত্রী মাঝেমধ্যেই সেই বাড়িতে বেড়াতে আসতো। পরে সেই বাড়ি বিক্রিকে কেন্দ্র করে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে ঝগড়া-বিবাদ হয়। এরই জের ধেরে ২০১৬ সালের ২৩ ডিসেম্বর রাতে সবার অগোচরে স্ত্রীকে বালিশ দিয়ে শ্বাসরোধে হত্যা করে স্বামী বাবুল। 

পরে ওই দিনই তানজিলার বোন তৌহিদা বেগম বাদী হয়ে পাঁচবিবি থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। এরপর ২০১৭ সালের ২২ মে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করে পুলিশ। মামলার দীর্ঘ শুনানি শেষে আদালত আজ এ রায় প্রদান করেন।

মামলায় রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী ছিলেন অ্যাড. নৃপেন্দ্রনাথ মন্ডল পিপি ও আসামিপক্ষের আইনজীবী ছিলেন হেনা কবির।

বিডি প্রতিদিন/আরাফাত

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin