বরিশাল কোতয়ালী মডেল থানায় ওপেন হাউজ ডে’ অনুষ্ঠিত

সিটি নিউজ ডেস্ক:: দেশ ও সমাজটাকে সুশৃংখল ও নিরাপদ রাখতে, সুন্দর একটি বাংলাদেশ বিনির্মাণের প্রত্যয়ে, ভালো একটি মন নিয়ে পুলিশের ডাকে সাড়া দিয়ে আপনারা ওপেন হাউজ ডে’তে এসে বিভিন্ন ধরনের তথ্য দিয়ে আমাদেরকে সহযোগিতা করার জন্য আপনাদেরকে আন্তরিক ধন্যবাদ। রবিবার (১৩ ডিসেম্বর) সকাল ১১ টায় কোতোয়ালি মডেল থানা চত্বরে কোতোয়ালি মডেল থানার আয়োজনে অনুষ্ঠিত ওপেন হাউজ ডে সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে পুলিশ কমিশনার-বিএমপি, মোঃ শাহাবুদ্দিন খান বিপিএম-বার একথা বলেন। এসময় তিনি পূর্ববর্তী মাসের ওপেন হাউজ ডে’তে ভুক্তভোগীদের উত্থাপিত বিভিন্ন বিষয়ের সমাধান কতটুকু বাস্তবায়ন হয়েছে সে বিষয়ের উপর আলোকপাত করেন। অতঃপর ওপেন হাউজ ডে তে আগত সকল ভুক্তভোগীর সমস্যা দীর্ঘ সময় ধরে অত্যন্ত গুরুত্বসহকারে শুনে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের নির্দেশ দেন।

বিজয়ের মাসে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান, তার পরিবারবর্গ ও মুক্তিযোদ্ধাদের আত্মাহুতির কথা শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করে তিনি বলেন, ‘জাতির পিতা ছিলেন একজন হ্যামিলনের বাঁশিওয়ালা। জাতির পিতার আহবানে সাড়া দিয়ে যে স্বপ্ন নিয়ে মুক্তিযোদ্ধারা দেশ স্বাধীন করেছিল, সেই স্বপ্নকে বাস্তবায়ন করতে আমাদের সকলকে যার যার অবস্থান থেকে এগিয়ে আসতে হবে, কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে কাজ করে যেতে হবে। তবেই জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও মুক্তিযোদ্ধাদের স্বপ্নের সোনার বাংলাদেশ বিনির্মাণ সম্ভব হবে।’ তিনি বলেন, ‘মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে আমরা যখন বিশ্বের দরবারে মাথা উঁচু করে দাঁড়িয়েছি, আমরা যখন উন্নয়নের মহাসড়কে অবস্থান করছি, আমরা যখন বিশ্বব্যাংককে বৃদ্ধাঙ্গুলি দেখিয়ে নিজেদের অর্থায়নে পদ্মা সেতুর মতো স্বপ্ন বাস্তবায়ন করেছি; ঠিক সেই সময় স্বাধীনতা বিরোধী একটি কুচক্রী মহল দেশটাকে পিছন থেকে টেনে ধরার জন্য বার বার ষড়যন্ত্রে লিপ্ত হচ্ছে। এবার তারা বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য নির্মাণকে বাধাগ্রস্থ করার জন্য ধর্মকে জাতীয় সত্তার বিরুদ্ধে দাঁড় করিয়েছে।

অথচ বঙ্গবন্ধু আমাদের দেখিয়ে গিয়েছেন কিভাবে জাতীয় সত্তার ভেতরে ধর্মকে ধারণ করতে হয়।’ এসময় তিনি উপস্থিত সকলকে পরবর্তী ওপেন হাউজ ডে’তে অংশগ্রহণের আমন্ত্রণ জানান। এ সময় বিশেষ অতিথি হিসেবে সভায় উপস্থিত অতিঃ পুলিশ কমিশনার বিএমপি প্রলয় চিসিম তার বক্তব্যে বলেন, ‘আমাদের কথা, কাজ বা চলাফেরার দাঁড়া আমরা যেন অন্যের বিরক্তির কারণ না হই। ওপেন হাউজ ডে’র কল্যাণে বিভিন্ন দুষ্ট প্রকৃতির লোক ও দুষ্কৃতিকারী যেমনি সচেতন হয়ে গিয়েছে, তেমনি আমাদের সদস্যরাও বুঝতে পারছে কোন ধরনের অন্যায়-অনিয়ম করে পার পাওয়া যাবে না’। এসময় তিনি মাননীয় পুলিশ কমিশনার দীর্ঘ সময় ধরে ধৈর্য নিয়ে ভুক্তভোগীদের সমস্যা গুরুত্বসহকারে শুনে সমাধানের ব্যবস্থা করার জন্য আন্তরিক ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন। সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন-সিনিয়র সহকারি পুলিশ কমিশনার কোতোয়ালি মডেল থানা রাসেল, সহকারী পুলিশ কমিশনার ডিবি নরেশ কর্মকার, অফিসার ইনচার্জ কোতোয়ালি মডেল থানা নুরুল ইসলাম-পিপিএম, পুলিশ পরিদর্শক তদন্ত জনা আসাদুজ্জামান, অফিসার ও ফোর্সবৃন্দ কমিউনিটি পুলিশিং’র সদস্যবৃন্দ সহ সকল শ্রেণী পেশার লোকজন।সুত্র, বরিশাল মুক্ত খবর

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin