উজিরপুর পৌরসভা নির্বাচনে গিয়াস পুন:রায় মেয়র নির্বাচিত

উজিরপুর প্রতিনিধি :: বরিশালের উজিরপুর পৌরসভায় উৎসব মূখর পরিবেশে ইভিএম পদ্বতিতে নির্বাচন সম্পান্ন হয়েছে। আ.লীগের মনোনিত মেয়র প্রার্থী মো: গিয়াসউদ্দিন বেপারী নৌকা প্রতিক নিয়ে মেয়র প্রার্থী মোঃ গিয়াস উদ্দিন বেপারী বেসরকারীভাবে ৫ হাজার ৭ শত ৫ ভোট পেয়ে ২য় বারের মত পুন:রায় মেয়র নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদন্ধি বিএনপি মনোনিত ধানের শীষ প্রতীকের মেয়র প্রার্থী মোঃ শহিদুল ইসলাম খান পেয়েছেন ৮শত ৩৫ ভোট এবং ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের হাতপাখা মার্কার কাজী শহিদুল ইসলাম পেয়েছেন ৬ শত ৭৭ ভোট। এছাড়াও ১৭টি ভোট বাতিল হয়েছে। কাউন্সিলর পদে সংরক্ষিত ৩ জন ও সাধারন কাউন্সিলর ৯জন নির্বাচিত হয়েছেন তারা সকলেই আ,লীগের নেতাকর্মী ও সমার্থিত। সকাল ৮ টায় ১ নং ওয়ার্ডের ডবিøউবি সরকারী মডেল মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের কেন্দ্রে আ.লীগের মেয়র প্রার্থী মো: গিয়াস উদ্দিন বেপারী তার ভোট প্রদান করেন। বিএনপি’র প্রার্থী শহিদুল ইসলাম খান ,

৯ নং ওয়ার্ডে রসুলাবাদ সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ও ইসার প্রার্থী কাজী শহিদুল ইসলাম ২ নং ওয়ার্ডের ইচলাদী সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ভোট প্রদান করেন। ভোটের পরিবেশে সাধারন ভোটাররা সন্তোাষ প্রকাশ করেছেন। উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা আলিম উদ্দিন জানিয়েছেন, শান্তিপূর্নভাবে নির্বাচন সম্পান্ন হয়েছে। ৯টি কেন্দ্রে বেসরকারীভাবে কাউন্সিলর প্রার্থী নির্বাচিত হয়েছেন ১ নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর প্রার্থী ও সাবেক কাউন্সিলর অসীম কুমার ঘরামী ডালিম প্রতীকে পেয়েছেন ৫শত ৬৯ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদদ্ধি ফরিদ হোসেন উটপাখি প্রতীকে পেয়েছেন ৫শত ভোট। ২ নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর প্রার্থী ও বর্তমান কাউন্সিলর মোঃ হেমায়েত উদ্দিন উটপাখি প্রতীকে পেয়েছেন ৫শত ৩৫ভোট। তার নিকটতম প্রতিদন্ধি সোহেল হাওলাদার পাঞ্জাবী প্রতিকে পেয়েছেন ৬৯ ভোট, ৩ নং ওয়ার্ডের নাসির উদ্দিন সিকদার উটপাখি প্রতীকে পেয়েছেন ৪শত ৭ ভোট, তার নিকটতম প্রতিদন্ধি সমীর নন্দী ডালিম প্রতীকে পেয়েছেন ৩শত ৩২ ভোট। ৪ নং ওয়ার্ডে মোঃ নজরুল ইসলাম মামুন টেবিল ল্যাম্প প্রতীকে পেয়েছেন ৩শত ৬৭ ভোট, তার নিকটতম প্রতিদন্ধি নাসির উদ্দিন বালী ডালিম প্রতীকে পেয়েছেন ১শত ২৯ ভোট।

৫ নং ওয়ার্ডে মোঃ মজিবর রহমান পানির বোতল প্রতীকে পেয়েছেন ৫শত ১৬ ভোট, তার নিটকতম প্রতিদন্ধি মোঃ চান মিয়া পেয়েছেন ৪শত ৭ ভোট। ৬ নং ওয়ার্ডে বিনা প্রতিদন্ধিতায় নির্বাচিত কাউন্সিলর মোঃ হাকিম সিকদার। ৭ নং ওয়ার্ডে বিনা প্রতিদন্ধিতায় নির্বাচিত মোঃ রিপন মোল্লা। ৮ নং ওয়ার্ডে মোঃ খায়রুল ইসলাম ও বর্তমান কাউন্সিলর ডালিম প্রতীকে পেয়েছেন ৩শত ৩১ ভোট, তার নিকটতম প্রতিদন্ধি মোঃ মিজান খলিফা পাঞ্জাবী প্রতিকে পেয়েছেন ২শত ৬৯ ভোট। ৯ নং ওয়ার্ডের মোঃ খবির উদ্দিন পাঞ্জাবী প্রতিকে পেয়েছেন ৪শত ২২ ভোট, তার নিকটতম প্রতিদন্ধি মোঃ কাইউম খান ডালিম প্রতীকে পেয়েছেন ৩শত ষাট ভোট। ১,২,৩ নং সংরক্ষিত আসনে মহিলা কাউন্সিলর প্রার্থী মোসাঃ আঁখি খানম অটোরিক্সা প্রতীকে পেয়েছেন ১ হাজার ১৪ ভোট, তার নিকটতম প্রতিদন্ধি সুরাইয়া ইসলাম বীণা আনারস প্রতীকে পেয়েছেন ৮শত ৫৮ ভোট।

৪,৫,৬ নং সংরক্ষিত আসনে সামসুন্নাহার সীমা চসমা প্রতীকে পেয়েছেন ৭শত ৯৬ ভোট, তার নিকটতম প্রতিদন্ধি মোসাঃ রিনা খানম পেয়েছেন ৭শত ৬৪ ভোট। ৭,৮,৯ নং সংরক্ষিত আসনে রানী বেগম চশমা প্রতীকে পেয়েছেন ১ হাজার ৬ শত ৫৭ ভোট, তার নিকটতম প্রতিদন্ধি নিগার সুলতানা বকুল আনারস প্রতীকে পেয়েছেন ৭শত ২ ভোট। উজিরপুর পৌরসভায় মোট ভোটার সংখ্যা ১১ হাজার ৯শত ২৪ ভোট, এর মধ্যে পুরুষ ৫ হাজার ৯শত ৮৮ এবং মহিলা ৫ হাজার ৯শত ৩৬ এর মধ্যে মোট কাষ্ট হয়েছে ৭ হাজার ১শত ৩২ ভোট। শতকরা হিসেবে ৫৯% ভোট প্রদান করেছেন ভোটাররা। তবে ইভিএম পদ্ধতিতে প্রথম ভোট হওয়ায় এবং আঙুলের ছাপ না মিলার কারণে কিছু কিছু কেন্দ্রে রাত্র ৬টা পর্যন্ত ভোট গ্রহন করা হয়েছে। ৫ নং ওয়ার্ডের মহিলা কলেজ কেন্দ্রে সকাল ১০টায় দুই কাউন্সিলর প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ হয় এতে ২ জন আহত হয়।

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin