বরিশালের সাংবাদিকদের স্বেচ্ছায় কারাবরণের আবেদন

সিটি নিউজ ডেস্ক: দৈনিক প্রথম আলোর জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক রোজিনা ইসলামের হামলা, নির্যাতন ও মিথ্যা মামলায় গ্রেফতারে কারাগারে প্রেরনের প্রতিবাদে স্বেচ্ছায় কারাবরনের আবেদন জানিয়েছেন বরিশালের সাংবাদিকরা।

আজ বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ১১টায় বরিশাল নিউজ এডিটরস্ কাউন্সিলের নেতৃত্বে সাংবাদিকরা বরিশাল কোতয়ালী মডেল থানায় গিয়ে ওসির নিকট স্বেচ্ছায় কারা বরনের আবেদন জানান।

এসময় উপস্থিত ছিলেন বরিশাল প্রেসক্লাবের পাঠাগার সম্পাদক খান রুবেল, নিউজ এডিটরস্ কাউন্সিলের সিনয়র সহ-সভাপতি সৈয়দ মেহেদী হাসান, সাধারণ সম্পাদত রিপন হাওলাদার, সহ-সভাপতি এম.কে রানা, প্রেসক্লাবের কার্যনির্বাহী সদস্য কে.এম নয়ন, বাংলা নিউজের মুশফিক সৌরভ, বরিশালের কথার বার্তা সম্পাদক আল আমিন জুয়েল, নিউজ বাংলার তন্ময় তপু প্রমুখ।

স্বেচ্ছায় কারাবরন করতে আসা বরিশাল নিউজ এডিটরস্ কাউন্সিলের সাধারণ সম্পাদক রিপন হাওলাদার বলেন, রোজিনা ইসলাম একজন পেশাদার সাংবাদিক। তাকে মিথ্যা অভিযোগে গ্রেফতার করে গোটা সাংবাদিক সমাজকে অপমাণিত করা হয়েছে।

এসময় তিনি সিংবাদিক রোজিনা ইসলামের নি.শর্ত মুক্তির পাশাপাশি ঘটনার সাথে জড়িত স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের দুর্নীতিগ্রস্থ সচিবসহ কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি জানান। সাংবাদিক রোজিনাকে মুক্তি না দিলে আরও কঠোর কর্মসূচির হুঁশিয়ারি দেন এই সাংবাদিক নেতা।

অপরদিকে নিউজ এডিটরস্ কাউন্সিলের সিনিয়র সহ-সভাপতি সৈয়দ মেহেদী হাসান বলেন, সাংবাদিক রোজিনা ইসলামকে যে অপরাধে গেফতার দেখানো হয়েছে আমরা মনে করি তাতে আমরাও অপরাধি। তিনি অনুসন্ধানি সাংবাদিকতার জন্য যেভাবে তথ্য-পমাণ সরবরাহ করে থাকেন আমরাও সেভাবেই তথ্য সংগ্রহ করে থাকি।

এটা যদি সাংবাদিক রোজিনার অপরাধ হয়ে থাকে তাহলে আমরাও অপরাধ করেছি। তাই সাংবাদিক রোজিনার সাথে আমারও কারাবরণের জন্য আবেদন নিয়ে থানায় এসেছি।

তবে সাংবাদিকদের বিরুদ্ধে কোন মামলা না থাকায় তাদের আটক করা আইন পরিপন্থি বিধায় তাদের কারাগারে পাঠাতে অপরাগতা পকাশ করেন থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মুরুল ইমলাম।

তিনি বলেন- সাংবাদিক রোজিনা ইসলামের সাথে যে ঘটনা ঘটেছে সেটা সেটার জন্য আমরা দুঃখ্য প্রকাশ করছি। আমরা আশা করছি আদালত এই ঘটনার সুষ্ঠু সমাধান দিবেন। সে জন্য সাংবাদিকদের ধৈর্যধারনের অনুরোধ জানান তিনি।

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin