বরিশালে বিদ্যুৎ বিভাগের গাফেলতি চলছেই

সিটি নিউজ ডেস্ক: থামছেই না ওয়েষ্ট জোন পাওয়ার ডিষ্টিবিউশন কোম্পানী লিমিটেডের (ওজোপাডিকোর) গাফেলতি। তাদের বিদ্যুত বিতরন অবস্থায় রয়েছে বড় ধরনের গলদ। তাদের কার্যক্রমে থাকে দায়সারা ও খামখেয়ালী। বিদ্যুত বিতরন ব্যবস্থা বন্ধ রাখার পূর্বে যে ধরনের প্রচার প্রচারনা প্রয়োজন তা কখনো সঠিকভাবে করেন না ওজোপাডিকো। সংযোগ মেরামত ও রক্ষনাবেক্ষনের কাজের জন্য তারা দায়সারাভাবে তড়িৎ গতির নাম মাত্র মাইকিং করলেও কখনোই দেওয়া হয়না পত্রিকায় বিজ্ঞপ্তি। ফলে অতি গুরুত্বপূর্ন এ বিষয়টি না জানার কারনে চরম দূর্ভোগে পড়তে হয় নগরবাসীকে। নগরীতে এটা প্রচলিত আছে যে বিদ্যুৎ নেওয়ার আগাম ঘোষনার মাইকিং ৯০ ভাগ মানুষের কানেই পৌছায় না। গতকাল শনিবার এমনই এক ঘটেছে। ওজোপাডিকোর ৪ টি ফিডার এলাকায় ১০ ঘন্টারও বেশী সময় ছিলো না বিদ্যুৎ। পূর্ব ঘোষণা অনুযায়ী বিদ্যুৎ বিভাগ সকাল ১০ থেকে বিকেল ৫ পর্যন্ত বিদ্যুৎ থাকবে না ঘোষনা দিলেও আড়াই ঘন্টা পর অর্থাৎ সাড়ে ৭টায় বিদ্যু আসে।


খবর নিয়ে জানা গেছে এই সব এলাকার বেশীর ভাগ মানুষের এ বিষয়ে আগে থেকে অবহিত ছিলো না। যে কারনে হাজার পরিবার চরম দূর্ভোগে পড়ে। ছিলো না পানি, হয়নি রান্নাও। অনেকেই পত্রিকা অফিসে ফোন করে তাদের ক্ষোভের কথা জানিয়েছেন। যথাযথ প্রচারের ঘাটতির কথা স্বীকার করে আমানতগঞ্জ পল্লী বিদ্যুৎ অফিসের নির্বাহী প্রকৌশলী বলেন ভবিষ্যতে ব্যাপক প্রচারের ব্যবস্থা করা হবে।


কাশিপুরে নতুন সাব স্টেশন ও কলাডেমার সাথে নতুন সংযোগ কাজের কারনে গতকাল কাশিপুর, নতুনবাজার, বিসিক ও কাউনিয়া ফিডারে সকাল ১০ টা থেকে সন্ধ্যা ৭ টা পর্যন্ত ৯ ঘন্টা একটানা বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন ছিলো। স্বাভাবিক কারনেই এইসব এলাকার কোন ঘরে বিদ্যুৎ ছিলো না। আর দায়সারা প্রচারের কারনে বেশীর ভাগ মানুষের কানেই পৌছেনি বিদ্যুৎ না থাকার বিষয়টি। ফলে পূর্ব প্রস্তুতির অভাবে শনিবার দিনভর চরম দূর্ভোগ পোহাতে হয়েছে এসব এলাকার মানুষকে। একদিনে তীব্র গরম অন্যদিকে ৯ ঘন্টা বিদ্যুৎ না থাকায় সর্বোচ্চ নাজেহালের শিকার হতে হয়েছে এসব এলাকার মানুষকে।
নগরীর কালিবাড়ি রোডের বয়জ্যেষ্ঠ বাসিন্দা ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন বিদ্যুৎ অফিসের মাইকিং শুনি না। তাছাড়া এই গরমে বিদ্যুৎ বন্ধ রেখে একটানা সারা দিন কাজ করার প্রয়োজনটা কি ? অর্ধেক বেলাওতো করা যেতে পারে। তিনি আরো বলেন এটা সম্পূর্ন অমানবিক ও বিদ্যুৎ অফিসের খামখেয়ালী। তীব্র গরমে অনেক বৃদ্ধ-শিশু অসুস্থ হয়ে পড়েছে। এভাবে বিদ্যুৎ অফিস জনগনকে দূর্ভোগে ফেলতে পারে না।


জানতে চাইলে আমানতগঞ্জ পল্লী বিদ্যুৎ অফিসের নির্বাহী প্রকৌশলী ফারুক আহমেদ বলেন, নতুন সাব স্টেশন ও নতুন সংযোগ কাজের কারনে এই সব এলাকাগুলোতে বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন ছিলো। কাজের প্রয়োজন হলে বিদ্যুৎ থাকবে না এটাই স্বাভাবিক। কিন্তু আমরা মাইকিং করেছি। মাইকিং এর বিষয়ে তিনি বলেন, মাইকিংএ আমাদের একটু দূর্বলতা ও সীমাবদ্ধতা রয়েছে। ভবিষ্যতে এ বিষয়ে দৃষ্টি রাখা হবে এবং পত্রিকা অফিসে বিজ্ঞপ্তি প্রেরন করা হবে।

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin