বরিশালের সড়কে হঠাৎ যানজট

সিটি নিউজ ডেস্ক: সোমবার থেকে সারা দেশে লকডাউন ঘোষণার খবরে বরিশালের সড়কে জনসমাগম অত্যধিক বেড়ে গেছে। ফলে রোববার সকাল থেকে বিকাল পর্যন্ত নগরীর প্রধান সড়কগুলোতে যানজটের সৃষ্টি হয়।

সড়কে অবৈধ পার্কিং ও ফুটপাত দখল হওয়ার কারণে চরম ভোগান্তির মধ্যে গাদাগাদি করে পথচারীদের চলাচল করতে দেখা গেছে। এ সময় অনেকেই মাস্ক না পরে প্রয়োজনীয় কেনাকাটা করতে বের হওয়ায় স্বাস্থ্যঝুঁকিতে পড়েছেন সাধারণ মানুষ।

সরেজমিন দেখা গেছে, সারা দেশে লকডাউন শুরু হওয়ার খবরে নগরীর বাণিজ্যিক এলাকাসহ প্রধান সড়কগুলোতে অত্যধিকহারে জনসমাগম বেড়ে গেছে। নগরবাসী তাদের প্রয়োজনীয় দ্রব্যসামগ্রী কিনতে এসব এলাকায় ভিড় করছেন। হঠাৎ করে নগরীতে যান চলাচল বেড়ে যাওয়া ও সড়কে অবৈধ পার্কিংয়ের ফলে সদর রোড, গির্জা মহল্লা, বাজার রোড, হাটখোলা, পোর্টরোড, চকবাজারে যানজটের সৃষ্টি হয়।

এছাড়া ফুটপাত দখল হয়ে সংকুচিত হওয়ায় সড়কের পথচারীদের অনেককেই মাস্ক না পরে গাদাগাদি করে ঘুরে বেড়াতে দেখা গেছে। নগরবাসীর এ অসচেতনতায় করোনাভাইরাস সংক্রমণের হার আরও ঊর্ধ্বমুখী হওয়ার শঙ্কা প্রকাশ করছেন স্বাস্থ্যবিদরা।

নগরীর নিউ সার্কুলার রোডের বাসিন্দা মোতালেব হাওলাদার জানান, লকডাউন চলাকালে ঘরবন্দি অবস্থায় থাকতে আগেই তিনি প্রয়োজনীয় খাদ্যসামগ্রী কিনতে বের হয়েছেন। কিন্তু সড়কে এত মানুষের ভিড় দেখে খুব অস্বস্তিতে রয়েছেন বলে জানান তিনি।

নগরীর কাশিপুরের যুবক ইয়াসিন হাওলাদার জানান, সামনে লকডাউন শুরু হচ্ছে তাই তাড়াহুড়ো করেই তার মাকে নিয়ে চিকিৎসকের শরণাপন্ন হতে এসেছেন তিনি। কিন্তু রাস্তায় এত যানজটের কারণে চরম ভোগান্তি পোহাতে হয়েছে বলে জানান এই যুবক।

বরিশাল বিভাগীয় স্বাস্থ্য পরিচালক ডা. বাসুদেব কুমার দাস বলেন, জনসমাগম বাড়লেই করোনার সংক্রমণও স্বাভাবিকভাবেই বাড়বে। আমাদের সবার উচিত হবে সরকার থেকে ঘোষিত নিয়ম মেনে চলা। স্বাস্থ্যবিধি মেনে না চললে ভবিষ্যতে আরও  ভয়াবহ পরিস্থিতি হতে পারে।

বরিশালের উপ-পুলিশ কমিশনার (ট্রাফিক) জাকির হোসেন মজুমদার বলেন, নগরীতে হঠাৎ করে রোববার যানবাহনের চাপ বেড়ে গেছে। দুই-একটি সড়কে যান চলাচল নির্বিঘ্ন রাখতে ট্রাফিক বিভাগের সদস্যদের হিমশিম খেতে হয়েছে। এছাড়া চালকরা নিয়ম না মেনে যত্রতত্র গাড়ি থামিয়ে যাত্রী ওঠানামা করায় সড়কে জট লাগছে। তাই পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে আরও  জনবল সংযোজন করা হয়েছে।

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin