বরিশালে ভুল চিকিৎসায় রোগী মৃত্যুর অভিযোগ

সিটি নিউজ ডেস্ক:: বরিশালে ভুল চিকিৎসায় রোগী মৃত্যুর অভিযোগ উঠেছে। পায়ের গোড়ালি ভাঙা রোগীর অপারেশন করাতে গিয়ে তিনি মারা গেছেন বলে দাবি পরিবারের। যদিও চিকিৎসক দাবি করেছেন, অপারেশন সফলভাবে সম্পন্ন হলেও হার্ট অ্যাটাকে তিনি মারা যান। বুধবার (১৪ জুলাই) বেলা ১১টার দিকে নগরীর বান্দ রোডে অবস্থিত রাহাত আনোয়ার হাসপাতালে ঘটনাটি ঘটে। মারা যাওয়া রোগীর নাম রোজী আক্তার (৪০)। তিনি বাবুগঞ্জ উপজেলার রহমতপুর এলাকার মৃত আব্দুল আজিজের স্ত্রী।

রোজী আক্তারের চাচাতো ভাই জালাল আহমেদ বলেন, অপারেশন থিয়েটারে নেওয়ার আগে রোগী আমাদের সঙ্গে কথা বলেছেন, সুস্থ ছিলেন। অপারেশনের পর তিনি মারা যান।

তিনি আরও বলেন, লাশ আমরা বাড়িতে দাফনের জন্য নিয়ে এসেছি। থানায় কোনো অভিযোগ দেবেন কি না, জানতে চাইলে তিনি বলেন, এখনি কোনো সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়নি। দাফনের পর পারিবারিকভাবে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

রোজী আক্তারের আরেক স্বজন রাশিদা বেগম জানান, বৃহস্পতিবার (৮ জুলাই) বাড়িতে কাজ করতে গিয়ে পড়ে পা ও হাত ভেঙে যায় রোজী আক্তারের। প্রথমে ইসলামী ব্যাংক হাসপাতালে ডাক্তার দেখাই।

সোমবার (১২ জুলাই) রাহাত আনোয়ার হাসপাতালে ডা. ফজলে রাব্বির চিকিৎসা নেন তিনি। ডাক্তার বলেছেন, রোজী আক্তারের পায়ের গোড়ালির অপারেশন করাতে পারবেন। হাতেরটি করাতে পারবেন না।

ডাক্তারের কথায় গোড়ালির অপারেশন করাতে মঙ্গলবার (১৩ জুলাই) সন্ধ্যায় রাহাত আনোয়ার হাসপাতালে ভর্তি করাই। রাত সাড়ে ১১টায় অপারেশন শেষ হয়। জ্ঞান ফেরার পর থেকেই রোজী চাচি শরীরে ব্যথা অনুভব করেন।

রাতে ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী একজন নার্স এসে রোলাক ইনজেকশন পুশ করেন। এর কিছুক্ষণ পরেই শ্বাস কষ্ট শুরু হয় রোগীর।
বুধবার বেলা ১১টার দিকে তিনি মারা যান। রাশিদা বেগম বলেন, ডাক্তারের ভুল চিকিৎসায় আমার চাচির মৃত্যু হয়েছে।

তবে অভিযুক্ত চিকিৎসক ফজলে রাব্বি জানিয়েছেন, সফলভাবে অস্ত্রোপচারের পরও রোগী সুস্থ ছিলেন। তার সঙ্গে অপারেশন টেবিলে এবং পরবর্তীতে কয়েকবার কথাও বলেছি। তবে আজ সকালে তিনি হার্ট অ্যাটাক করে মারা যান।

ডা. ফজলে রাব্বি আরও বলেন, অপারেশন ভুল হলে তিনি অপারেশন টেবিলেই মারা যেতেন। তাছাড়া রাতে অপারেশন হওয়ার অনেক সময় পরে আজ সকালে তিনি হার্ট অ্যাটাক করেন। এখানে চিকিৎসার কোনো ত্রুটি ছিল না।সুত্র, ঢাকা পোস্ট

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin